নগরীতে পুকুর ভরাট করে ভবন নির্মাণের অভিযোগ

13/02/2018 2:06 am0 commentsViews: 69

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী নগরীর হেতেমখাঁ মহলৱায় পুকুর ভরাট করে একটি বহুতল ভবন নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে। ভবনটির নির্মাণ কাজ শুর্ব করতে রাজশাহী উন্নয়ন কর্তৃপৰের কাছ থেকে নকশারও কোনো অনুমোদন নেওয়া হয়নি। তাই ভবনের যেটুকু নির্মাণ করা হয়েছে সেটুকু কেন ভেঙে ফেলা হবে না তা জানতে চেয়ে ভবন মালিককে কারণ দর্শানো নোটিশ দিয়েছে আরডিএ।
স্থানীয়রা জানিয়েছেন, হেতেমখাঁ এলাকার ‘চৌধুরী পুকুর’ নামের একটি ভরাট করে ভবনটির নির্মাণ কাজ শুর্ব করা হয়েছে। বোয়ালিয়া মৌজার আরএস-১৮৫৩ নম্বর দাগের ৬ কাঠা ওই জমিটির মালিকের নাম সেকেন্দার আলী। ভবনটি নির্মাণ হলে বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কায় স্থানীয়রা আরডিএ’র কাছে লিখিতভাবে অভিযোগ করেন।
ওই অভিযোগের প্রেৰিতে গত ৫ ফেব্র্বয়ারি নির্মাণ কাজ বন্ধ করার জন্য আরডিএ’র পৰ থেকে সেকেন্দার আলীকে কারণ দর্শানো নোটিশ দেওয়া হয়। এই নোটিশের একটি অনুলিপি বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার (ওসি) কাছে পাঠিয়ে ভবনটির নির্মাণ কাজ বন্ধ করার জন্য অনুরোধ জানানো হয়। গত রোববার পুলিশ গিয়ে কাজ বন্ধের নির্দেশ দিয়ে আসে।
কিন্তু স্থানীয়রা বলছেন, সেকেন্দার আলী তার ভবন নির্মাণের কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন। এখন পর্যন্ত ভবনের পিৱর্থ লেভেল পর্যন্ত নির্মাণ করা হয়েছে। এদিকে আরডিএ জানিয়েছে, অনুমোদিত নকশা দেখাতে ব্যর্থ হওয়ায় সেকেন্দার আলীকে কারণ দর্শানো নোটিশ পাঠানো হয়। সাত দিনের মধ্যে এর জবাব দিতেও সেকেন্দার আলীকে সময় বেধে দেওয়া হয়। কিন্তু গতকাল সোমবার পর্যন্ত তিনি জবাব দেননি।
জানতে চাইলে সেকেন্দার আলী বলেন, গত রোববারই তিনি কারণ দর্শানোর নোটিশটি পাঠিয়েছেন। এরপর কাজ বন্ধ রেখেছেন। কয়েকদিনের মধ্যেই নোটিশের জবাব দেওয়া হবে। সেকেন্দার আলী স্বীকার করেন, তিনি পুকুর ভরাট করে নির্মাণ কাজ শুর্ব করেছেন। তবে বহুতল ভবন নয়, একতলা ছাত্রাবাস নির্মাণের কাজ শুর্ব করেছিলেন তিনি।

Leave a Reply