রামেক হাসপাতালে নতুন রেডিওথেরাপি মেশিন

08/02/2018 2:09 am0 commentsViews: 43

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সাড়ে ৩ বছর পর সংযোজন হলো ক্যান্সার রোগীদের জন্য নতুন কোবাল্ট-৬০ রেডিওথেরাপি মেশিন। এর ফলে এই অঞ্চলের ক্যান্সার রোগীদের রেডিওথেরাপির জন্য দুর্ভোগ কমে আসবে।
সংশিৱষ্ট সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘ প্রতিৰার পর গত ১ ফেব্র্বয়ারি রামেক হাসপাতালে এসে পৌঁছেছে রেডিওথেরাপির জন্য কোবাল্ট-৬০ মেশিন। ২০১৪ সালের সেপ্টেম্বর মাসে আগের কোবাল্ট-৬০ রেডিওথেরাপি মেশিনটি নষ্ট হয়ে যায়। এতে করে এই অঞ্চলের ক্যান্সার রোগীরা দুর্ভোগের মধ্যে পড়েন। তখন উত্তরবঙ্গের একমাত্র সরকারি রেডিওথেরাপি মেশিন ছিল বগুড়ায়। সেটিও মাঝে মধ্যে নষ্ট থাকতো। এছাড়া ঢাকায় রোগীর ভিড়ে ৩ থেকে ৪ মাসের আগে কোন সিরিয়াল পাওয়া যায় না। ঢাকায় বেসরকারিভাবে যে কয়টি রেডিওথেরাপি মেশিন আছে সেগুলোর চিকিৎসা অত্যন্ত ব্যয়বহুল। সরকারি ভাবে যেখানে খরচ হয় ১৫ হাজার টাকা, বেসরকারি ভাবে খরচ হয় দেড় থেকে দুই লাখ টাকা। এই অঞ্চলের ক্যান্সার রোগীরা কেমোথেরাপি দেবার পর এখানকার মেশিন নষ্ট থাকায় অর্থাভাবে অনেকেই রেডিওথেরাপি করাতে না পেরে মৃত্যুবরণ করেছেন। ক্যান্সার রোগীদের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা করে এখানকার ৰমতাসীন রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের হস্তৰেপে সরকার এই হাসপাতালের জন্য নতুন রেডিওথেরাপি মেশিনটি বরাদ্দ করে। নতুন এই মেশিনটির মুল্য প্রায় ১০ কোটি টাকা। মেশিনটি চালু হলে এই অঞ্চলের রোগীদের রেডিওথেরাপির জন্য আর বাইরে যেতে হবে না। পুরানো মেশিনটির জায়গায় নতুন এই মেশিনটি বসানো এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র।
রামেক হাসপাতালের রেডিওথেরাপি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ডা: অসীম কুমার ঘোষ জানান, এই মেশিনটি না থাকায় কেমোথেরাপি দেবার পর অর্থাভাবে অনেক ক্যান্সার রোগী অন্যত্র গিয়ে রেডিওথেরাপি করাতে পারছিলনা। পুরানোটির জায়গায় যতো তাড়াতাড়ি সম্ভব এই নতুনটি বসানো হলে আর সমস্যা থাকবে না।

Leave a Reply