পুঠিয়ায় হাতুড়ি পেটায় আহত ৩, গ্রেপ্তার ১

14/11/2017 1:05 am0 commentsViews: 21

পুঠিয়া পৌর প্রতিনিধি: পুঠিয়ায় জেএসসি পরীৰার্থীদের উত্ত্যক্ত করার প্রতিবাদ করায় দু জনকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে আহত করেছে বখাটেরা। এসময় জেএসসি পরীৰার্থীদেরও মারধর করা হয়। এ ঘটনায় পরীৰার্থীসহ ৩ জন আহত হয়েছে। থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। জড়িতদের মধ্যে ১ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
রোববার দুপুরে উপজেলার বেলপুকুর ইউনিয়নের রেল-গেট এলাকায় এঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে রোববার রাতে ভুক্তভোগী পরীৰার্থীর বাবা বাদি হয়ে পুঠিয়া থানায় ৬ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। আহতরা হলেন, উপজেলার বেলপুকুর ইউনিয়নের মোলৱা জামিরা গ্রামের মৃত আয়নাল হকের ছেলে ভ্যানচালক হাসেম আলী (২৪) ও তার বড়ভাই আলমাস আলী। গ্রেপ্তারকৃত ওই বখাটে হলো, উপজেলার বেলপুকুর ইউনিয়নের মিম আলীর ছেলে আল-আমীন (২২)। গ্রেপ্তারকৃতকে সোমবার সকালে আদালতের মাধ্যমে জেল-হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি সায়েদুর রহমান ভুইয়া।
আহতদের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, রোববার সকালে জামিরা উচ্চ বিদ্যালয়ের কয়েক জন জেএসসি পরীৰার্থী জনৈক হাসেমের ভ্যানযোগে বানেশ্বর নাদের আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্রে পরীৰা দিতে যায়। পরীৰা শেষে একই ভ্যানে বাসায় ফেরার পথে দুপুর দেড়টার দিকে বেলপুকুর রেলগেট এলাকায় এলে আল-আমীনসহ ৬ জন বখাটে তাদের উদ্দেশ্য করে অশৱীল কথা বলে তাদের উত্ত্যক্ত করে। এসময় ভ্যান চালক হাসেম আলী এর প্রতিবাদ করলে তাদের সঙ্গে থাকা হাতুড়ি ও লোহার রড দিয়ে হাসেমকে এলোপাথাড়ি পেটাতে থাকে এবং ভ্যানের ওপর বসে থাকা শিৰার্থীসহ ভ্যানটি পাশে খাদে ফেলে দেয়। খবর পেয়ে হাসেমের বড়ভাই আলমাস আলী ঘটনাস্থলে এসে তাদের বাধা দিলে তাকেও পিটিয়ে আহত করে। আহত হাসেম জানান, আমাকে মারা অবস্থায় আমার বোন বাধা দিতে এলে তাকেও রড দিয়ে আঘাত করে তারা। পরে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে তাদের উদ্ধার করে পুঠিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেৱঙে ভর্তি করে। তাদের দু জনের শরীরে অসংখ্য আঘাতের চিহৃ রয়েছে। পরে রাতেই পরীৰার্থীর বাবা বাদি হয়ে পুঠিয়া থানায় ৬ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। এঘটনায় রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে জড়িতদের একজন আল-আমিন হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে।
পুঠিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি সায়েদুর রহমান জানান, এঘটনায় ১ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্যদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। তদন্তের স্বার্থে অন্য আসামিদের নাম প্রকাশ করেনি ওসি।

Leave a Reply