স্টাফ রিপোর্টার : বিদ্যুৎ বিভাগের অভিযোগ শাখা নিয়ে অভিযোগের শেষ নাই গ্রাহকদের মধ্যে। গ্রাহকদের অভিযোগ অভিযোগ শাখায় ফোন দিয়ে অধিকাংশ সময়ই সাড়া পাওয়া যায় না।
গত শুক্রবার (২৮ সেপ্টেম্বর) এই অভিযোগ প্রকট ভাবে উঠেছে হড়গ্রাম এলাকার মানুষের মধ্য থেকে। এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে রাত সাড়ে ৮ টার দিকে ১১ হাজার কেভি তার ছিড়ে পড়ে রাস্তার উপরে। বিষয়টি জানানোর জন্য আতংকীত মানুষ বার বার ফোন দেয় বিদ্যুতের অভিযোগ শাখায়। বিদ্যুৎ বিতরন বিভাগ-২ এর মোলৱাপাড়া অভিযোগ শাখায় অসংখ্যবার ফোন দেয় বিভিন্ন জন। দুই একবার রিং হলেও পরে ইনগেজ দেখা দেয়। অভিযোগ রয়েছে অভিযোগ শাখার দায়িত্বে নিয়োজিত কর্মচারী রিসিভার নামিয়ে রেখে ডিউটি পালন করেন। এলাবাসী বলছে থানা পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিস গাড়ী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়। পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসের তৎপরতায় আধা ঘন্টারও পর ঘটনাস্থলে আসে বিদ্যুতের লোকজন। পুলিশ ওই রাস্তায় চলাচল বন্ধ রাখে। বিদ্যুৎ বিভাগের দায়িত্বহীনতায় মানুষের ৰোভ এতবড় একটা দুর্ঘটনার খবর দিতে পারা যায়না বিদ্যুতের অভিযোগ শাখার সংযোগ না পাওয়া। হরহামেশায় এধরনের দুর্ঘটনা ঘটছে। জোড়াতালি দিয়ে মেরামত করে চালানো হচ্ছে সঞ্চালন লাইনের তার। কাজলা ধরমপুর এলাকার একজন কলেজ শিৰক জানান তার বাড়ীর সংযোগে ত্র্বটি দেখা দিলে সে অনেক কষ্টে অভিযোগ জানিয়ে দীর্ঘ সময় অপেৰার পর দেখা পায় বিদ্যুতের লোকের। কাজ শেষে ভাব এমন যেন তাকে উদ্ধার করলেন। এর পর প্রস্তাব তাদের খুশি করার। খুশির বিষয়টি জানতে চাইলে তারা রাগ দেখিয়ে চলে যান। সময়মত ঘটনাস্থলে উপস্থিত না হতে পারা বিষয়ে নাম প্রকাশ না করার শর্তে বিদ্যুতের জনৈক কর্মকর্তা জানান গাড়ী স্বল্পতার কারনে তাদের অপেৰা করতে হয় অনেক ৰেত্রে। তবে অভিযোগ শাখার সতর্ক হওয়া জর্বরী।