বৈশাখের ৪ দিনেও কাঙিৰত বৃষ্টি না হওয়ায় রাজশাহী অঞ্চলের চাষিরা দুশ্চিন্তায়

18/04/2017 1:08 am0 commentsViews: 36

কাজী নাজমুল ইসলাম: চৈত্র মাসের পর বৈশাখ মাসের ৪ দিন অতিবাহিত হলেও রাজশাহী অঞ্চলে কাঙিৰত বৃষ্টির দেখা নেই। এতে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। সেই সাথে বৃষ্টি না হওয়ায় আম, কাঠাল ও লিচুর গুটি ঝরে পড়ায় এবং সবজি আবাদ নিয়ে চাষিরা দুশ্চিন্তায় পড়েছেন।
আজ বৈশাখ মাসের ৫ তারিখ। গোটা চৈত্র মাসব্যাপী রাজশাহীতে উলেৱ্লখ করার মত বৃষ্টি হয়নি। বৈশাখের গত ৪ দিনেও কাঙিৰত বৃষ্টির দেখা নেই। এই অবস’ায় আবহাওয়ার বিরূপ প্রতিক্রিয়ায় ভ্যাপসা গরমে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে।
শুধু মানুষ নয়, পশু-পাখিরাও গরমে বেকায়দায় পড়েছে। দুপুরে রোদের প্রখরতায় বাইরে বের হওয়া কঠিন হয়ে পড়েছে। একান্ত প্রয়োজন ছাড়া কেউ দুপুরে বাইরে বের হচ্ছেননা। হাসপাতালগুলোতে বাড়তে শুর্ব করেছে গরমজনিত রোগে আক্রান্ত রোগির সংখ্যা। চিকিৎসকরা এ সময় সকলকে একটু সাবধানে চলাচল করার পরামর্শ দিয়েছেন।
এদিকে একমাস ৪ দিন যাবত কাংখিত বৃষ্টি না হওয়ায় ঝরে পড়তে শুর্ব করেছে আম-কাঁঠাল ও লিচুর গুটি। সেই সাথে রোদে পুড়ছে সবজি আবাদ। এই অবস’ায় চাষিদেরকে আবাদ রৰায় আম-লিচু গাছে ও সবজি খেতে সেচ দিতে দেখা গেছে।
অনেকে আবার জমি প্রস’ত করে রেখে বৃষ্টির অভাবে পাট বীজ বপন করতে পারছেন না। যাদের সেচ সুবিধা আছে তারা আর বৃষ্টির জন্য অপেৰা না করে সেচ দিয়ে পাট বীজ বপন শুর্ব করেছেন।
চাপাইনবাবগঞ্জ কৃষি সমপ্রসারণ অধিদপ্তরের উপ পরিচালক কৃষিবিদ মঞ্জুর্বল হুদা এ পরিসি’তিতে চাষিদের আম ও লিচু গাছে এবং সবজি খেতে বৃষ্টি না হওয়া পর্যন্ত সেচ দেবার পরামর্শ দিয়েছেন।
রাজশাহী আবহাওয়া অফিস জানায়, গতকাল সোমবার রাজশাহীতে তাপমাত্রা ছিল সর্বোচ্চ ৩৫ দশমিক ২ এবং সর্বনিম্ন ২১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত ৩ এপ্রিল রাজশাহীতে মৌসুমের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৭ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আবহাওয়া অফিস আরো জানায়, গত মার্চ মাসের ১১ তারিখে রাজশাহীতে বৃষ্টি হয়েছিল ২১ দশমিক ৬ মিলিমিটার। এরপরে গতকাল পর্যন্ত রাজশাহীতে উলেৱ্লখ করার মত বৃষ্টি হয়নি।

Leave a Reply