মার্চে প্রায় ৯৯ কোটি টাকার চোরাচালান পণ্য আটক করেছে বিজিবি

04/04/2017 1:02 am0 commentsViews: 7

এফএনএস: বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) সদস্যরা গত মার্চে সীমানৱ এলাকাসহ অন্যান্য স’ানে অভিযান চালিয়ে প্রায় ৯৯ কোটি টাকার চোরাচালান পণ্য ও মাদকদ্রব্য আটক করা হয়েছে। আটক মাদকের মধ্যে রয়েছে ১৫ লাখ ২ হাজার ১৪৩ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ২৭ হাজার ১৫১ বোতল ফেন্সিডিল, ১ হাজার ৪৩৪ কেজি গাঁজা, ২৫ হাজার ৩৫০ বোতল বিদেশী মদ, ৪ কেজি ৩৩১ গ্রাম হেরোইন, ১৩ হাজার ৬৮৩টি নেশাজাতীয় ইনজেকশন এবং ১৭ লাখ ১৭ হাজার ৭১৫ পিস বিভিন্ন প্রকারের অবৈধ ট্যাবলেট। এ ছাড়া আটককৃত অন্যান্য চোরাচালান পণ্যের মধ্যে রয়েছে ১১ হাজার ৫৫৯টি শাড়ি, ৩ হাজার ৩৭৫টি থ্রিপিস বা শার্টপিস, ১ হাজার ৬৯৩ মিটার থান কাপড়, ২০৩টি তৈরি পোশাক, ৪৩ হাজার ৪৪৫ সিএফটি কাঠ, ৩ কেজি ২০০ গ্রাম স্বর্ণ এবং ১টি তৰক। এ সময় বিজিবি’র সদস্যরা ৬টি পিসৱল, ৬টি বন্দুক, ৩৯ রাউন্ড গুলি, ৪টি ম্যাগজিন, ১টি মর্টারশেল এবং ১টি হাত বামা উদ্ধার করে। বিজিবি’র এসব অভিযানে মাদক পাচারসহ অন্যান্য চোরাচালানে জড়িত থাকার অভিযোগে ১৪১ জন এবং অবৈধভাবে সীমানৱ অতিক্রমের অভিযোগে ১২৯ জন বাংলাদেশী নাগরিককে আটক করে। এ ছাড়া ভারত থেকে বাংলাদেশে অবৈধভাবে সীমানৱ অতিক্রমকালে ১৩ জন ভারতীয় নাগরিককে আটক করে। এরমধ্যে ১১ জনকে বিএসএফ’র কাছে হসৱানৱর ও দু’জনকে থানায় সোপর্দ করে। এ ছাড়া এ সময বাংলাদেশ-মায়ানমার সীমানেৱ ৩৭৯ জন মায়ানমার নাগরিকের অবৈধ অনুপ্রবেশ প্রতিহত করা হয়। এ নিয়ে চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে মার্চ মাস পর্যনৱ বিজিবি ৩২৯ কোটি ৩১ লাখ ৭৪ হাজার টাকা মূল্যের বিভিন্ন প্রকারের চোরাচালান পণ্য ও মাদকদ্রব্য আটক করতে সৰম হয়েছে।

Leave a Reply